SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং সৃজনশীল রচনামূলক প্রশ্নোত্তর ১ম

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং সৃজনশীল রচনামূলক প্রশ্নোত্তর ১ম: অধ্যায়: ১ অর্থায়ন ও ব্যবসায় অর্থায়ন > অতিসংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর PDF ফাইল সহ শিক্ষমূলক সকল বিষয় পাবে এখান থেকে: অর্থায়ন ও ব্যবসায় অর্থায়ন এর অতিসংক্ষিপ্ত, প্রশ্নোত্তর,সংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর ও রচনামূলক প্রশ্নোত্তর, MCQ,

সাজেশন সম্পর্কে আজকে বিস্তারিত সকল কিছু জানতে পারবেন। সুতরাং সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি মনোযোগ দিয়ে পড়ুন। নবম ও দশম এর যেকোন বিভাগের সাজেশন পেতে জাগোরিকের সাথে থাকুন।

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং সৃজনশীল রচনামূলক প্রশ্নোত্তর ১ম

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিংজ্ঞানমূলক প্রশ্নোত্তর ১ম,PDF ফ্রি

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং সৃজনশীল: রচনামূলক প্রশ্নোত্তর ১ম

সৃজনশীল প্রশ্নোত্তর: ০১

২০১২ সালের আর্থিক বিবরণীতে দেখা যাচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে।
(ক) রপ্তানি থেকে আমদানি বেশি হলে কোন ধরনের ঘাটতি দেখা যায়?
(খ) সরকারকে কোন দেশের জন্য অনেক অর্থ ব্যয় করতে হয় কেন?

(গ) এ কে এন্টারপ্রাইজের ব্যবস্থাপক জনাব সোহানের সামগ্রিক কার্যμমকে কী বলা যায়? বর্ণনা কর।
(ঘ) জনাব সোহান কোন নীতিটি ঠিকমতো অনুসরণ করলে ক্ষতির সম্মুখীন হতেন না বলে মনে কর?

উত্তর (ক)

রপ্তানি থেকে আমদানি বেশি হলে বাণিজ্য ঘাটতি দেখা যায়।

উত্তর: (খ)

সরকারকে নিজ দেশের সার্বিক উন্নয়নে অনেক অর্থ ব্যয় করতে হয়। এ জন্য প্রথমেই সরকারকে তার বার্ষিক ব্যয় কোন কোন খাতে কী পরিমাণ হবে তা নির্ধারণ করতে হয়। তার মোট ব্যয়ের অর্থ যোগান দিতে কোন কোন উৎস থেকে অর্থ সংগ্রহ করা যাবে তা নির্ধারণ করতে হয়।

ব্যয়ের খাতগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- রাস্তাঘাট, সেতু, সরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, সরকারি হাসপাতাল, আইনশৃঙ্খলা ও প্রতিরক্ষা, সামাজিক অবকাঠামো নির্মাণ ইত্যাইদ।

সরকারি আয়ের উৎসগুলো মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো-আয়কর, মূল্য সংযোজন কর, গিফট ট্যাক্স, আমদানি শুল্ক, রপ্তানি শুল্ক, সঞ্চয়পত্র, প্রাইজবন্ড, ট্রেজারি বিল ইত্যাদি। মূলকথা হলো সরকারকে নিজ দেশের আর্থসামাজিক উন্নয়নে অনেক অর্থ ব্যয় করতে হয়।

উত্তর: (গ)

এ কে এন্টারপ্রাইজের ব্যবস্থাপক জনাব সোহানের সামগ্রিক কর্যক্রমকে ব্যবসায় অর্থায়ন বলা যায়। কারণ ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান তার তহবিল সংগ্রহ ও বিনিয়োগের জন্য যে কার্যক্রম বা প্রক্রিয়া ব্যবহার করে তাই অর্থায়ন।

স্বাভাবিকভাবে একমালিকানা ও অংশীদারি ব্যবসায় অর্থায়নের তহবিল সংগ্রহের উৎস হিসাবে মালিকের নিজস্ব তহবিল, মুনাফা, আত্মীয়স্বজন থেকে গৃহীত ঋণ, ব্যাংক বা গ্রামীণ মহাজন থেকে সুদের ভিত্তিতে ঋণ গ্রহণ ইত্যাদি ব্যবহার করা হয়।

এ কে এন্টারপ্রাইজ তার অর্থায়নের উৎস হিসাবে সবুজ ব্যাংক থেকে ঋণ গ্রহণ, বন্ধু শফিকুল ইসলাম ও মামাতো বোন ফারজানা থেকে ঋণ গ্রহণের ঋনগুলো ব্যবহার করেছে। সংগৃহীত তহবিল বিদ্যুৎ বিল প্রদান, কর্মচারীদের বেতন প্রদান, ভাড়া প্রদান ও নতুন মেশিন ক্রয়ে ব্যবহার করা হয়েছে।

সুতরাং এ কে এন্টারপ্রাইজের ব্যবস্থাপক জনাব সোহানের সামগ্রিক কার্যক্রম ব্যবসায় অর্থায়ন ভিন্ন অন্য কিছু নয়।
মূলকথা তহবিল সংগ্রহ ও তহবিল ব্যবহার করার এ সকল কাজকর্ম এ কে এন্টারপ্রাইজের ব্যবসায় অর্থায়নের আওতাভুক্ত।

উত্তর: (ঘ)

জনাব সোহানের কারবারি অর্থায়ন ব্যবস্থাপনায় ত্রুটি রয়েছে।
তিনি কারবারি অর্থাযন ব্যবস্থাপনার উপযুক্ততার নীতি যথাযথভাবে অনুসরণ করলে ক্ষতির সম্মুখীন হতেন না। উপযুক্ততার নীতির মূল কথা হলো স্বপ্লমেয়াদি তহবিল দিয়ে চলতি মূলধন ও দীর্ঘমেয়াদি তহবিল দিয়ে স্থায়ী মুলধন সরবারহ করা উচিত।

জনাব সোহান তার ১০ লক্ষ টাকা তহবিল সংগ্রহের উৎস হিসাবে সবুজ ব্যাংক থেকে ঋণ গ্রহণ (৮,০০,০০০), বন্ধু শফিকুল ইসলাম থেকে ঋণ গ্রহণ (১,০০,০০০) ও মামাতো বোন ফারজানা থেকে ঋণ গ্রহণ (১,০০,০০০) এর উৎস ব্যবহার করেন।

এসব দীর্ঘমেয়াদি উৎস হতে টাকা সংগ্রহ করে অধিকাংশ টাকাই বিদ্যুৎ বিল প্রদান (১,০০,০০০) টাকা, কর্মচারীদের বেতন প্রদান (৪,০০,০০০) টাকা ও ভাড়া প্রদান (২,০০,০০০) টাকা খাতে ব্যয় করেছেন যা মোটেও উচিত হয়নি। কারণ বিদ্যুৎ বিল প্রদান, ভাড়া প্রদান বা কর্মচারীদের বেতন প্রদানের খাতগুলো চলতি মেয়াদি মূলধন।

এসব খাতের ব্যয়সমূহ স্বপ্লমেয়াদি তহবিল দিয়ে মেটানো উচিত ছিল। সাধারণত পন্য বিক্রয়লব্ধ অর্থ দিয়ে চলতি মূলধন খরচ মেটানো উচিত। মূলকথা চলতি ব্যয় নির্বাহের জন্য দীর্ঘমেয়াদি তহবিলের উৎস ব্যবহার না করলে তিনি ক্ষতির সম্মুখীন হতেন না।

সৃজনশীল প্রশ্নোত্তর: ০২

(ক) কিসের পর থেকেই উৎপাদন কৌশল জটিলতর হয়?
(খ) একজন ব্যবসায়ীর কোন ধরনের জ্ঞান থাকলে পরিকল্পনামাফিক স্বল্পমূল্যে প্রয়োজনীয় পরিমাণ অর্থসংস্থান করতে পারে? ব্যাখ্যা কর।

(গ) ‘ক’ প্রতিষ্ঠানটি কীভাবে অর্থায়ন করতে পারে? ব্যাখ্যা কর।
(ঘ) উপরিউক্ত দুটি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে কোন প্রতিষ্ঠানটির ঝুঁকি কম বলে মনে হয়? বিশ্লেষণ কর।

উত্তর: (ক)

সপ্তদশ শতাব্দীর শিপ্লবিপ্লবের পর থেকেই উৎপাদন কৌশল জটিলতর হয়।

উত্তর: (খ)

একজন ব্যবসায়ীর অর্থায়ন ব্যবস্থাপনা-বিষয়ক পূর্ণ জ্ঞান থাকলে পরিকল্পনামাফিক স্বল্পমূলে প্রয়োজনীয় পরিমাণ অর্থ সংস্থান করতে পারে। একজন ব্যবসায়ীর নিকট ব্যবসায়ে অর্থায়নের বিভিন্ন উৎস খোলা থাকতে পারে।

নিজস্ব উৎস হতে তহবিল সংগ্রহ করবে না কি ঋণ মূলধন ব্যবহার করবে না কি বিভিন্ন মিশ্রণ ব্যবহার করা যায় ইত্যাদি বিষয়ে সিন্ধান্ত গ্রহণে অর্থায়ন ব্যবস্থাপনা-বিষয়ক ভালো জ্ঞান থাকা আবশ্যক।

তাহলেই কেবল একজন ব্যবসায়ী ন্যূনতম খরচে প্রয়োজনীয় মূলধন সংগ্রহের আদর্শ মিশ্রণ বের করতে পারবেন।
মূলকথা আর্থায়ন-বিষয়ক জ্ঞানের অভাব তহবিল সঙগ্রহের খরচকে বাড়িয়ে দিতে পারে।

উত্তর: (গ)

‘ক’ প্রতিষ্ঠানের মালিক একাই মুনাফা বা ক্ষতি ভোগ করে। সুতারাং ‘ক’ প্রতিষ্ঠানটি একটি একমালিকানা প্রতিষ্ঠান। একমালিকানা প্রতিষ্ঠান হিসাবে ‘ক’ প্রতিষ্ঠানটি বিভিন্ন উৎস ব্যবহার করে তার অর্থায়ন করতে পারে। যেমন-

> নিজস্ব উৎস হতে অর্থায়ন করতে পারে।
> আতœীয়স্বনদের থেকে ধার বা ঋণ নিয়ে অর্থায়ন করতে পারে।
> বন্ধু-বান্ধবদের থেকে ধার বা ঋণ নিয়ে অর্থায়ন করতে পারে।

> ব্যাংক বা অন্যকোনো আর্থিক প্রতিষ্ঠান বা গ্রামীণ মহাজন থেকে ঋণ নিয়ে অর্থায়ন করতে পারে।
> নিজ প্রতিষ্ঠানের মুনাফা থেকে অর্থায়ন করতে পারে।

মূলকথা অর্থায়নের বিভিন্ন উৎসের মধ্যে ‘ক’ প্রতিষ্ঠানের জন্য উল্লেখযোগ্য হলো- নিজ্ব তহবিল, আতœীয়স্বজন বা বন্ধু-বান্ধব থেকে ঋণ, ব্যাংক ঋণ ইত্যাদি।

উত্তর: (ঘ)

উপরিউক্ত দুটি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ‘খ’ প্রতিষ্ঠানটির ঝুঁকি কম।
দুটি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ‘ক’ প্রতিষ্ঠানটি শুধু একটি পণ্যের ব্যবসা করে এবং তা হচ্ছে মিনিপ্যাক শ্যাম্পু। অন্যদিকে ‘খ’ প্রতিষ্ঠান তিনটি পণ্য নিয়ে ব্যবসা করে এবং তা হচ্ছে বোতলজাত শ্যাম্পু , মিনিপ্যাক শ্যাম্পু এবং হারবাল শ্যাম্পু।

অর্থায়ন ব্যবস্থাপনার বিভিন্ন নীতি বিশ্লেষণ করলে আমরা পাই যে, তহবিল বিনিয়োগের ক্ষেত্রে কারাবারি পণ্য বা সেবা যত দূর সম্ভব বৈচিত্র্যপূর্ণ হলে কারবারের ঝুঁকি বন্টিত হয় এবং হ্রাস পায়। এ দৃষ্টিকোণ থেকে ‘খ’ প্রতিষ্ঠানটির ঝুঁকি কম। কারণ এটি তিনটি পন্যের ব্যবসায় করে।

ফলে দেশের অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক, সামাজিক প্রেক্ষাপটের পরিবর্তন, বাজারে নতুন পণ্যের উপস্থিতি, প্রাকৃতিক দুর্যোগ, আকস্মিক দুর্ঘটনা ইত্যাদি ঝুঁকি প্রাদানগুলো একযোগে সকল পন্যের জন্য ঝুঁকির কারণ হবে এমন ধারণা করা ভুল।

আমরা জানি, একজন ব্যবসায়ী যদি শুধু এক ধরনের পন্যের ব্যবসা করে, তাহলে ব্যবসায়ের মূনাফা অর্জন বেশ ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে যায়। পক্ষান্তরে কারবারের পন্য যদি বিভিন্ন ও বৈচিত্র্যপুর্ণ হয়, তাহলে ঝুঁকি বন্টিত হয়।

কোনো একটি পরিস্থিতিতে ‘খ’ প্রতিষ্ঠানের একটি পণ্যের বিক্রয় হ্রাস পেলেও অন্যান্য পণ্যের বিক্রয় কারবারটি হ্রাসকৃত বিক্রয় পুষিয়ে নিতে পারবে।

ফলে সব ধরনের অবস্থায় কারবারটি কক্সিক্ষত পরিমাণ মুনাফা অর্জন করতে পারবে।
মূলকথা ঝুঁকি হ্রাস পন্য বৈচিত্র্যায়ণের নীতি গ্রহণ করায় ‘খ’ প্রতিষ্ঠানটির ঝুঁকি কম।

প্র্যাকটিস অংশঃ-সৃজনশীল রচনামূলক প্রশ্নঃ

১. জনাব হাসেম কুয়েতে একটি ঋধংঃ ঋড়ড়ফ দোকানে দীর্ঘ পাঁচ বছর কাজ করেন। তাঁর চাকরি জীবনের অর্জিত অর্থ দিয়ে নিজ দেশে একটি ফাস্ট ফুডের দোকান দেয়ার কথা ভাবছেন। এ জন্য অর্থায়ন প্রয়োজন।

দোকানটি চালু করার জন্য বিদেশ থেকে তার অর্জিত অর্থ, তাঁর আতœীয়স্বজন, বন্ধু-বান্ধব হতে অর্থ জোগাড় করেন। দোকান কর্মচারীর বেতন, দোকান ভাড়া, বিদ্যুৎ বিল এ রকম ছোট ছোট খরচ ছাড়াও বড় অঙ্কের খরচও তাকে করতে হবে যেমন- একটি ফ্রিজ, কিছু আসবাবপত্র ইত্যাদি। (পাঠ ১.১)

(ক) অর্থায়ন কী নিয়ে কাজ করে?
(খ) কারবারে মুনাফা অর্জনে অর্থায়ন গুরুত্বপূর্ণ কেন?

(গ) জনাব হাসেম তাঁর প্রাপ্ত তহবিল কীভাবে ব্যবহার করলে সে তাঁর কাক্সিক্ষত লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারবে?
(ঘ) জনাব হাসমের ফাস্ট ফুডের দোকানটি লাভজনক করার জন্য কী ধরনের ব্যবসায় অর্থায়ন প্রয়োজন হবে বলে তুমি মনে কর – তোমার উত্তরের সপক্ষে যুক্তি দেখাও।

২. জনাব রফিক একজন সরকারি চাকরিজীবী সে প্রতি কর্মদিবসে সাধারণত বাসে চলাচল করে। একদিন পথে যানজটের সৃষ্টি হয় এবং বাসের প্রায় সকল যাত্রীরাই হইচই শুরু করে দেয় এবং সরকারের প্রশাসনের কঠোর সমালোচনা করতে থাকে।

কিন্তু রফিক সাহেব যেহেতু একজন সরকারি কর্মচারী, সেহেতু সে জনগণের প্রতি সরকারের কল্যাণকর দিকগুলো তুলে ধরার চেষ্টা করেন এবং রাস্তাঘাট, সেতু নির্মাণের মতো ব্যয়বহুল খরচ যে আয়কর, সঞ্চয়পত্রের মতো অন্যান্য আয়ের উৎস দিয়ে সব সময় সংকুলান হয় না তা বুঝিয়ে দিলেন। (পাঠ ১.১)

(ক) সরকারি অর্থায়নের মূল লক্ষ্য কী?
(খ) সরকারি অর্থায়নের গুরুত্ব কী ব্যাখ্যা কর।

(গ) রফিক সাহেব কর্তৃক উল্লিখিত রাস্তাঘাট, সেতু ব্যতিরেকে আরও কী কী উন্নয়নমূলক কাজ সরকার করে থাকে এবং সেগুলোর অর্থায়ন কীভাবে হয় তার বর্ণনা দাও।
(ঘ) রফিক সাহেব যে মতামত দিয়েছেন তাতে কি সরকারি অর্থায়ন ব্যবস্থাপনা আলোচিত হয়েছে? তোমার মতের সপক্ষে যুক্তি দাও।

৩. আঞ্জুমান মহিদুল ইসলাম একটি সমাজ কল্যাণমূলক প্রতিষ্ঠান। এ প্রতিষ্ঠানের মূল্য হচ্ছে সমাজে যারা সুবিধাবঞ্চিত দরিদ্র তাদের সেবা দেওয়া। যেমন বেওয়ারিশ লাশ দাফন করা, অসুস্থ রোগীদের বিনা খরচে পরিবহনের ব্যবস্থা করা ইত্যাদি। বাংলাদেশ একটি দরিদ্র দেশ। এ দেশের অধিকাংশ মানুষ নানাবিধ অর্থনৈতিক সমস্যায় জর্জরিত।

এ প্রতিষ্ঠান সমাজের উচ্চবিত্তদের কাজ থেকে অনুদান, জাকাত প্রভৃতির মাধ্যমে অর্থ সংগ্রহ করে এবং তা সামাজিক কাজে ব্যয় করে। যেমন-অ্যাম্বুলেন্স ক্রয়, এতিমদের জন্য আবসন ব্যবস্থা করা ইত্যাদি। (পাঠ ১.১)

(ক) পারিবারিক অর্থায়ন কী?
(খ) এতিমখানা সমাজের এত গুরুত্বপূর্ণ কেন?

(গ) আঞ্জুমান মহিদুল তার অর্জিত অর্থ কীভাবে সমাজকল্যাণমূলক কাজে ব্যয় করে?
(ঘ) সুষ্ঠু অর্থায়ন প্রক্রিয়া আঞ্জুমান মহিদুল ইসলামের মতো একটি জনকল্যাণমূলক প্রতিষ্ঠানকে আরও উন্নতির দিকে নিয়ে যেতে পারে-এ ব্যাপারে তোমার মতামতের পক্ষে যুক্তি দেখাও।

৪. মোঃ আলিরাজ একজন অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মকর্তা। তিনি তাঁর কর্মজীবনে ব্যাংকের পরিদর্শন শাখা, হিসাব শাখাসহ বিভিন্ন বিভাগে কাজ করেছেন। অবসরে গিয়ে তিনি একটি ওষুধের দোকান দেন।

তাঁর নিজস্ব মূলধন দিয়ে ব্যবসা শুরু করলেও পরবর্তীতে অনেক অর্থের প্রয়োজন হয়। কিন্তু ব্যাংকে আবেদন করা সত্ত্বে তাতে দীর্ঘসূত্রিতার কারণ তা আর পাওয়া যায়নি। তারপরও তিনি ব্যবসায়ের বেশ লাভ করেন এবং সফল হন। (পাঠ ১.৪)

(ক) ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানগুলোর ঝুঁকি হ্রাস এবং মুনাফা বৃদ্ধি পায় কীভাবে?
(খ) অর্থায়ন ব্যবস্থাপনা গুরুত্বপূর্ণ কেন?

(গ) অর্থায়ন ব্যবস্থাপনার জ্ঞান কীভাবে মোঃ আলিরাজকে তার ব্যবসায়ে সফলতা এনে দিয়েছিল ব্যাখ্যা দাও।
(ঘ) মোঃ আলিরাজের ব্যবসায়ের আর্থিক পরিকল্পনা ও ব্যবস্থাপনা তাকে কোন ধরনের সমস্যা পূর্বেই বুঝতে সহায়তা করে ছিল বলে তুমি কর? তোমার উত্তরের সপক্ষে যুক্তি দাও।

৫. জনাব আকবর একজন হার্ডওয়্যার ব্যবসায়ী। সে তার ব্যবসাকে সচল রাখার জন্য নিজের অর্থ এবং বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠান থেকে অর্থ সংগ্রহ করে বেশি লাভজনক অবস্থানে ছিলেন। কয়েক বছর যাওয়ার পর দেখা গেল ব্যাংকে বেশি মাত্রায় টাকা বিনিয়োগ করায় তার ব্যবসায়ে তারল্য সংকট দেখা দেয়। এতে ব্যবসায় ক্ষতি সাধিত হয়। (পাঠ ১.৪)

(ক) কারবারি অর্থায়ন ব্যবস্থাপনা কী?
(খ) কারবারি অর্থায়ন ব্যবস্থাপনার জন্য নীতিমালা প্রয়োজন কেন?

(গ) জনাব আকবর কীভাবে অর্থায়ন ব্যবস্থাপনা করলে লাভজনক অবস্থানে ফিরে যেতে পারেন? বর্ণনা কর।
(ঘ) জনাব আকবর তার নগদ আয়ের কতটুকু দৈনন্দিন ব্যয়ের জন্য এবং কতটুকু বিনিয়োগের জন্য নির্ধারণ করবে- সেটি কোন নীতির ওপর নির্ভর করছে বলে তুমি মনে কর।

৬. জনাব রমিজ একজন ফাষ্ট ফুড দোকানের মালিক। ২০০১ সাল থেকে সে এই ব্যবসার সাথে জড়িত। তখন তার দোকানে কোনো রেফ্রিজারেটর ছিল না। তখন তার মুনাফা হতো গড়ে বছরে ১,২০,০০০ থেকে ২,০০,০০০ টাকা পর্যন্ত। গত ২০০৫ সালে সে তার দোকানের জন্য একটি রেফ্রিজারেটর কিনেছিল। এতে সে কোমল পানীয় ও মিষ্টি জাতীয় খাবার রাখতে পারছে।

ফলে তার বাৎসরিক আয় পূর্বের তুলনায় ৫০% বেড়ে গেল এবং তার দোকানে ক্রেতাও বেড়ে গেল। এ অবস্থায় সে ভাবছে তার দোকান যদি সম্প্রাসারণ করে আরও ২টি রেফ্রিজারেটরের জন্য বিনিয়োগ করা হয়, তাহলে তার আয় ক্রমান্বয়ে বৃদ্ধি পেতে থাকবে। (পাঠ ১.৬)

(ক) আর্থিক ব্যবস্থাপনা কয় ধরনের সিদ্ধান্ত নিয়ে কাজ করে?
(খ) অর্থায়ন সিদ্ধান্ত কীভাবে হয়ে থাকে?

(গ) জনাব রমিজের ২টি রেফ্রিজারেটরে বিনিয়োগ সিদ্ধান্ত নিতে হলে তাকে কী কী বিষয় বিবেচনায় আনতে হবে?
(ঘ) রেফ্রিজারেটর ২টি ক্রয়ের ব্যাপারে জনাব রমিজকে অর্থায়ন ও বিনিয়োগ সিদ্ধান্ত ছাড়া আর কী কী সিদ্ধান্ত নিতে হবে বলে তুমি মনে কর-তোমার উত্তরের সপক্ষে যুক্তি দেখাও।

৭. আজমল একটি প্রতিষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক। তিনি ইতিহাসের অনেক গ্রন্থের রচিয়তা। অন্যদিকে ড. আতাহার একই বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিন্যান্স বিভাগের অধ্যাপক।

দুজনেই অবসরে দেশের দেশের ইতিহাস, রাজনীতি, অর্থনীতি বিভিন্ন বিষয়ে আলাপ-আলোচনা করেন। জনাব আজমল একদিন প্রসঙ্গক্রম বাংলাদেশের অতীত ইতিহাস নিয়ে আলোচনা করেছিলেন।

তিনি ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলন, ১৬৬৯ এর গণ-অভ্যুথান, ১৯৭১ সালের স্বাধীনতাযুদ্ধ ইত্যাদি বিষয় নিয়ে কথা বলছিলেন। অন্যদিকে জনাব আতাহার ত্রিশের দশকের বিশ্ব অর্থনৈতিক মন্দা, আধূনিক অর্থায়ন এবং পরবর্তীতে বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থার মতো একটি বৃহৎ প্রতিষ্ঠানের আতœপ্রকাশ ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা করেন।

জনাব আতহার ব্যবসায়ে অর্থায়ন বিষয়টি গুরুত্বসহকারে ব্যক্ত করেন। ব্যবসায়ে মুনাফা করতে হলে নির্ভূল হিসাবের প্রয়োজন বা কম্পিউটারের মাধ্যমে সুচারুরুপে সম্পাদন করা সম্ভব। বাংলাদেশ একটি শ্রমনির্ভর দেশ বিধায় এ দেশে গার্মেন্টস শিল্পের প্রসার ঘটেছে।

আবার ব্যবসায় চালিকা শক্তি হলো অর্থ। সেজন্য মূলধনের কোনো বিকল্প নেই। বৃহৎ কোনো প্রতিষ্ঠান গড়তে গেলে বিশাল অংকের মূলধন প্রয়োজন যা ছোট ছোট বিনিয়োগকারীর কাছ থেকে সংগ্রহ করা সম্ভব যাকে শেয়ার মূলধন বলে। (পাঠ ১.৬)

(ক) অর্থায়নের বিকাশের মূল চারণভূমি কোথায়?
(খ) আধুনিক অর্থায়নের গুরুত্ব বর্ণনা কর।

(গ) জনাব আতাহার বিভিন্ন সময়ে অর্থায়নের উদ্দেশ্য কীভাবে ব্যাখ্যা দেন? বর্ণনা কর।
(ঘ) অর্থায়নের ক্রমোন্নয়নের ধারায় ড. আতাহার আর্থিক ব্যবস্থাপকদের কোন ধরনের দায়িত্ব পালন করতে দেখেছেন বলে মনে কর? বিশ্লেষণ কর।

১.মি. ফাহাদ এসএসসি পাস করার পর দারিদ্র্যের কারণে আর পড়াশুনা করতে পারে নি । অনেক চিন্তা ভাবনা করে সে স্থানীয বাজাওে একটি মৃদি দোকান দেয় । মুদি দোকানের ব্যবসায় ভালো হওয়ায় সে তার ব্যবসায় আরও সম্প্রসারণের কথা ভাবছে ।
(ক). বিদ্যালয় কোন ধরনের প্রতিষ্ঠান ?

(খ).অর্থায়ন বলতে কী বোঝ ? ব্যাখ্যা কর ।
(গ).মি.ফাহাদ এর ব্যবসায় হিসেবে মুদি দোকান বেছে নেওয়ার কারণ কী ?বর্ণনা দাও ।
(ঘ).ব্যবসায় সম্প্রসারণে মি. ফাহাদ কীভাবে তার প্রয়োজনীয় অর্থের যোগন দিতে পারে ? উত্তরের সপক্ষে যুক্তি দাও ।

২.মি.জামান সৃজনী ট্রেডার্স লি . এর স্বত্বধিকারী । ব্যবসায়ে তার মূলধনের প্রয়োজন পড়ায় তিনি ব্যাংকের দ্বারস্থ হন । নিন্তু আশানুরূপ ফল না পাওযয়য় তিনি তার ব্যবসায়ে কয়েকজন বিনিয়োগকরী অন্তর্ভুক্ত কারার প্রয়োজনবোধ করেন কিন্তু সঠিক বিনিয়োগকরীর অভাবে তার ব্যাসায়ের সফল সম্প্রসারণ সম্ভব হয় নি।

(ক). প্রাথমিক ব্যয় কী ?
(খ).তহবিল সংরক্ষনের প্রয়োজনীয়তা ব্যাখ্যা কর।

(গ).মি. জামানের ব্যবসায়ের মূলধন সংগ্রহের প্রতিবদ্ধকতাগুলো কী ছিল ? বর্ণনা কর
(ঘ).ব্যবসায়ের উন্নয়ন ও প্রবৃদ্ধি অর্জনে মূলধন ও সঠিক বিনিয়োগকারীর ভূমিকা অপরিসীম কক্তব্যটির যথার্থতা মূল্যায়ন কর ।

৩.জনাব আহসান আহমেদ ঢাকার চকবাজর এলাকার একজন পাইকারি কাপড় বিক্রেতা ।

তিনি পবিত্র ঈদ উল আযহা ও দূর্গাপূজা উপলক্ষে কাপড় ও লুঙ্গি ক্রয় করেন । কিন্তু এতে লাভ না হওয়ায় তিনি পুনবায় নদগ অর্থ দিয়ে শীতের মৌসুমভিত্তিক কাপড় ক্রয় করে তা বিক্রি কওে পূর্বের কাঙ্খিত সুনাফা অর্জন করেন ।

(ক). জনকল্যান কোন অর্থায়নের মূল উদ্দেশ্য ?
(খ).ব্যবসায় অর্থায়ন প্রক্রিয়া এত গুরুত্বপূর্ন কেন ? বর্ণনা কর ।

(গ).জনাব আহসান আহমেদ শীতবস্ত্র ক্রয়ে কোন নীতি অনুসরন করেছেন ? বর্ণন কর।
(ঘ).ব্যবসায়ের ক্ষতি পুষিয়ে নেওয়ায় ক্ষেত্রে জনাব আহসান আহমেদের পরিকল্পনা কীরূপ ছিল ? আলোচনা কর ।

৪.মি. রায়াহান পূর্বপরিকল্পনা ছাড়াই শেয়ার ব্যবসায়ে অর্থ বিনিয়োগ করে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হন । তবে তিনি এক বন্ধুর পরামর্শে নতুন করে মৎস্য চাষ প্রকল্পে বিনিয়োগ করেণ। ধীরে ধীরে তিনি ব্যবসায়ে আরও অর্থ বিনিয়োগে উৎসাহী হন।

(ক). কোন ধরনের কোম্পানির অর্থায়ন প্রক্রিয়া ভিন্ন ধরনের ?
(খ).পূর্নঙ্গ ব্যবসায়ীর স্বতঃস্ফূত ধারনা ব্যাখ্যা কর ।

(গ).প্রাথমিক বিনিয়োগে মি. রায়হানের ব্যর্থতার কারণ কী ?বর্ণনা কর।
(ঘ).মি.রায়হানের মৎস্য চাষ বিনিয়োগ যথার্থ ছিল কি না ? ধারণা দাও ।

৫.সম্প্রতি মালয়েশিয়া সরকার চুক্তি মোতাবেক কবংলাদেশ থেকে ১০০০০ শ্রমিক নেওয়ার ঘোষনা দিয়েছেন । মালয়েশিয়ায় শ্রমিক পাঠানোর ফলে আয় ও প্রবৃদ্ধি অর্জনের পাশাপাশি দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নেও বিশেষ ভুমিকা রাখরে।

(ক). কোনটি ব্যবসায়ীদের পূর্বানুমানে সহায়তা করে ?
(খ).তারল্য ঘাটতির কারণ ব্যাখ্যা কর ।

(গ).বিদেশে শ্রমিক প্রেরনে সরকারের সরণীয় কী ? বর্ণনা কর ।
(ঘ).প্রবাসীদের পাঠানো অর্থ দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে কীরূপে প্রভাব ফেলবে বলে তুমি মনে কর ? উত্তরের সপক্ষে যুক্তি দাও।

৬.নিচের ছকটি পড় এবং প্রশ্ন গুলোর উত্তর দাও ঃ
ক.অর্থায়নের প্রধান কাজ কী ?
খ.তারল্য বনাম মুনাফার সমন্বয় নীতি বলতে কী বোঝ? ব্যাখ্যা কর।

ক -প্রতিষ্টান খ-প্রতিষ্ঠন
পণ্য
আকর্ষনীয় ঘড়ি, মূল্যবান ক্যামেরা ,দামি কলত পণ্য
ব্যাটারি , ডিজেল ইঞ্জিন,ডায়নামো, বয়লার
মূলধন সংগ্রহ

ক,খ,গ তিনজন মূলধন সংগ্রহ
শেয়ার সংখ্যা দ্বারা সীমাবদ্ধ

গ.“ক”প্রতিষ্ঠানটি কীভাবে অর্থায়ন করতে পারে ব্যাখ্যা কর।
ঘ.উদ্দীপকের প্রতিষ্ঠান দুটির মধ্যে কোন প্রতিষ্ঠানটি বিনিয়োগের জন্য উপযোগী বলে তুমি মনে কর ? মতামত দাও ।

৭. নিচের ছকটি পড় এবং প্রশ্ন গুলোর উত্তর দাও ঃ
সিদ্ধান্ত
এ-প্রতিষ্ঠান

১.তহবিরের প্রয়োজনীয়তা
২.তহবিলের পরিমাণ নির্ধারন

৩.তহবিলের উৎস নির্বাচন বি-প্রতিষ্ঠান
১.উৎপাদনমুখী মেশিন ক্রয়

২.প্রতিষ্ঠান সংক্রান্ত খরচ
৩.নগদ প্রবাহ

ক.এডিবি কোন ধরনের ঋণ প্রদান করে ?
খ.তহবিল সংগ্রহ প্রক্রিয়া বলতে কী বোঝ?

গ.এ প্রতিষ্ঠানের অর্থায়নের সিদ্ধান্তটি বর্ণনা কর।
ঘ.বদ্দীপকের প্রতিষ্ঠান দুটির মধ্যে কোন প্রতিষ্টনের সিদ্ধান্তটি সর্বাধিক গ্রহণযোগ্য ? বিশ্লেষন কর।

৮. আলট্রা একটি সিরামিক গ্রব্র প্রস্তুতকারী কোম্পানি । প্রতিবছর বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এসব দ্রব্য রপ্তনি করে প্রচুর মুনাফা অর্জন করে। ফলে শেয়ারহোল্ডাররাও তাদের ন্যায্যা পাওনা পেয়ে অত্যন্ত সন্তুষ্টি। একটি পরিকল্পিত অর্থায়ন প্রকিয়া ব্যবহারে প্রতিষ্টানটি সহজেই তার উৎপাদন খরচ কমিয়ে মুনাফা অর্জনে সক্ষম হয়েছে।

ক.আলট্টার মতো ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানে কোন ধরনের অর্থায়ন প্রযোজ্য ?
খ.শেয়ারহেল্ডারদের প্রাপ্য কী এবং কীভাবে তা বৃদ্ধি করা যায় ?

গ.একজন আর্থিক ব্যবস্থাপককে এ ধরনের প্রতিষ্ঠানে কী কী সিদ্ধান্ত নিতে হয় ? বর্ননা কর।
ঘ.অর্থায়ন ব্যবস্থাপনার মূল চালিকাশক্তি – বিশ্লেষন কর।

৯.ব্যবসায় উদ্যোগী মি.শফিক ব্যবসায় করার জন্য গার্মেন্টস ও সিরামিকস শিল্পের মধ্যে সিরামিকস শিল্প অধিক ফলপ্রসু বলে মনে করেন । তাছারা এ শিল্পের চাহিদা অনেক বিধায় সকলে এতে বিনিয়োগের জন্য এগিয়ে আসে।
ক.কিসের মাধ্যমে উৎপাদন খরচ নূন্যতম রাখা যায় ?

খ.অর্থায়নের নিয়ন্ত্রন প্রক্রিয়া ব্যাখ্যা কর।
গ.মি. শফিকের সিরামিকস শিল্প বেছে নেওয়ার করণ কী ? বর্ণনা কর ।
ঘ.মি. শফিকের মতো ব্যবসায়ীদের ব্যবসায়ে বিনিয়োগের তাৎপর্য ব্যাখ্যা কর ।

PDFফাইল

উক্ত বিষয় সম্পর্কে কিছু জানার থাকলে কমেন্ট করতে পারেন।
আমাদের সাথে ইউটিউব চ্যানেলে যুক্ত হতে এখানে ক্লিক করুন এবং আমাদের সাথে ফেইজবুক পেইজে যুক্ত হতে এখানে ক্লিক করুন। গুরুত্বপূর্ণ আপডেট ও তথ্য পেতে আমাদের ওয়েবসাইটে ভিজিট করুন। ফ্রি পিডিএফ ফাইল এখান থেকে ডাউনলোড করে নিন।

Check Also

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিংঅনুধাবনমূলক-জ্ঞানমূলক প্রশ্নোত্তোর

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং:অনুধাবনমূলক-জ্ঞানমূলক প্রশ্নোত্তোর

SSC ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং:অনুধাবনমূলক-জ্ঞানমূলক প্রশ্নোত্তোর,অধ্যায়:২ PDF, অধ্যায়:২: অধ্যায়: ২ অর্থায়নের উৎস > অতিসংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর PDF …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *